সর্বশেষ

শেষ ঘাঁটি রক্ষায় মরণ কামড় দিচ্ছে আইএস

ই-বার্তা ডেস্ক।।  সিরিয়ায় জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটের বিরুদ্ধে ‘শেষ ধাক্কা’র লড়াই শুরু করেছে মার্কিন সমর্থিত যোদ্ধারা।  সিরিয়ান ডেমোক্রেটিক ফোর্স সিরিয়ার পূর্বাঞ্চলে আইএস নিয়ন্ত্রিত সর্বশেষ এলাকাগুলো পুনরুদ্ধারে চূড়ান্ত অভিযানে নেমেছে শনিবার। 

নিজেদের ‘শেষ ঘাঁটি’ রক্ষায় আইএস জঙ্গিরাও তুমুল প্রতিরোধ গড়ে তুলেছে বলে জানানো হয়েছে। খবর বিবিসির।  কয়েক সপ্তাহের মধ্যেই সিরিয়া থেকে আইএসের সর্বশেষ ঘাঁটিগুলো দখল করার ঘোষণা দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।  সিরিয়ার অধিকাংশ এলাকা রুশ-ইরান সমর্থিত আসাদ সরকারের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।

তবে ইরাক সীমান্তবর্তী কয়েকটি গ্রাম ও অঞ্চল এখনও আইএসের দখলে রয়েছে।  যা ভবিষ্যতে হুমকি হয়ে দেখা দিতে পারে।  তাই তাদের নির্মূল না করা পর্যন্ত সৈন্য প্রত্যাহারে মার্কিন প্রতিরক্ষা দফতর পেন্টাগন বিরোধিতা করছে।  আইএসের বিরুদ্ধে শুরু হওয়া অভিযানটিই সর্বশেষ যুদ্ধ এবং এর মাধ্যমেই সন্ত্রাসীদের সব ঘাঁটি মুক্ত করা হবে বলে জানিয়েছেন এসডিএফের মুখপাত্র মুস্তাফা বালি।

শনিবার রাতে তিনি বলেন, ‘আইএস জঙ্গিরাও মরণ কামড় দিচ্ছে।  জঙ্গিগোষ্ঠীটির ‘সবচেয়ে অভিজ্ঞ’ যোদ্ধারা সর্বশক্তি দিয়ে যুদ্ধ করছে।  তারা শেষ দুর্গ রক্ষায় সংকল্পবদ্ধ।  এ থেকেই আপনারা যুদ্ধের মাত্রা ও তীব্রতা বুঝতে পারছেন।  তারা এ অভিযানের নাম দিয়েছে ‘অপারেশন চ্যামেল’।’

২০১৪ সালে আইএস ইরাক ও সিরিয়ার বিশাল এলাকাজুড়ে ‘খেলাফত’ কায়েম করেছিল।  জঙ্গিগোষ্ঠীটি সেসময় প্রায় ৮০ লাখ মানুষকে শাসন করত।

ই-বার্তা/মোঃ সালাউদ্দিন সাজু